সদ্যপ্রাপ্ত
রাজশাহী, শনিবার, ২৩ জুন ২০১৮, ৮ আষাঢ় ১৪২৫
52 somachar
সোমবার ● ২৬ ফেব্রুয়ারী ২০১৮
প্রথম পাতা » এক্সক্লুসিভ » গুহার পাশ দিয়ে গেলেই মৃত্যু!
প্রথম পাতা » এক্সক্লুসিভ » গুহার পাশ দিয়ে গেলেই মৃত্যু!
১০৭ বার পঠিত
সোমবার ● ২৬ ফেব্রুয়ারী ২০১৮
Decrease Font Size Increase Font Size Email this Article Print Friendly Version

গুহার পাশ দিয়ে গেলেই মৃত্যু!

অনলাইন প্রতিবেদক, রাজশাহী: বিজ্ঞানীরা জানিয়েছেন, কোনও অলৌকিক শক্তি কাজ করে না ওই গুহায়। তাঁদের দাবি, প্রচুর পরিমাণে কার্বন ডাই অক্সাইড থাকার দরুণ এমন কাণ্ড ঘটে। রহস্য ভেদ হল পৃথিবীর নরকদ্বারের। তুরস্কর ডেনিজিলি প্রদেশের দু’হাজার পুরনো একটি গুহার রহস্য উন্মোচন করলেন বিজ্ঞানীরা। কী সেই রহস্য?স্থানীয় বাসিন্দাদের মতে, এই গুহার মধ্যে বাস করেন গ্রিকদের নরকের দেবতা প্লুটো। যাঁর নিঃশ্বাসে বিষাক্ত বাতাস বের হয়। ওই গুহায় ঢোকা তো দূরাস্ত, পাশ দিয়ে গেলেই বিপদ ঘটতে পারে। শুধুই জনশ্রুতি নয়, এর প্রমাণ বারবার দেখা গিয়েছে বলে দাবি সেখানকার বাসিন্দাদের। সম্প্রতি ওই গুহার পাশে কয়েকটি পাখির মৃতদেহ পড়ে থাকতে দেখা যায়। তা হলে সত্যিই কি গ্রিক দেবতা প্লুটো বাস করেন?
বিজ্ঞানীরা জানিয়েছেন, কোনও অলৌকিক শক্তি কাজ করে না ওই গুহায়। তাঁদের দাবি, প্রচুর পরিমাণে কার্বন ডাই অক্সাইড থাকার দরুণ এমন কাণ্ড ঘটে। চলতি ফ্রেব্রুয়ারিতে প্রকাশিত আরকিওলজিক্যাল অ্যান্ড অ্যান্থ্রোপলজিক্যাল নামক জার্নালে জানা গিয়েছে, ওই গুহার বাতাসে রয়েছে ৪ শতাংশ থেকে ৫৩ শতাংশ পর্যন্ত ভলক্যানিক কার্বন ডাই অক্সাইড। অন্যান্য গ্যাসের তুলনায় ভারী বলে নীচের দিকেই থাকে এই গ্যাস।

২০১৩-য় ওই গুহার বাইরে বেশ কয়েকটি মৃত পাখি পড়ে থাকতে দেখা যায়। বিজ্ঞানীদের অনুমান, ওই গুহা থেকে নির্গত হওয়া কার্বন ডাই অক্সাইডের বিষক্রিয়ায় মারা গিয়েছে পাখিগুলি।



আর্কাইভ

PropellerAds

পাঠকের মন্তব্য

(মতামতের জন্যে সম্পাদক দায়ী নয়।)