সদ্যপ্রাপ্ত
রাজশাহী, সোমবার, ২২ অক্টোবর ২০১৮, ৭ কার্তিক ১৪২৫
52 somachar
শনিবার ● ৬ অক্টোবর ২০১৮
প্রথম পাতা » আন্তর্জাতিক » সিরিয়ায় আবার হামলা করার ব্যাপারে ইসরাইলকে সতর্ক করল রাশিয়া
প্রথম পাতা » আন্তর্জাতিক » সিরিয়ায় আবার হামলা করার ব্যাপারে ইসরাইলকে সতর্ক করল রাশিয়া
৪১ বার পঠিত
শনিবার ● ৬ অক্টোবর ২০১৮
Decrease Font Size Increase Font Size Email this Article Print Friendly Version

সিরিয়ায় আবার হামলা করার ব্যাপারে ইসরাইলকে সতর্ক করল রাশিয়া

৫২ সমাচার, অনলাইন ডেস্ক:সিরিয়ায় মোতায়েন রাশিয়ার আকাশ প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা ‘এস-৩০০’ সম্পর্কে ইহুদিবাদী ইসরাইল ‘সঠিক মূল্যায়ন’ করবে বলে মস্কো আশা প্রকাশ করেছে। রাশিয়া আরো বলেছে, সিরিয়ায় ইসরাইলি হামলা বন্ধ করার লক্ষ্যে দামেস্কের হাতে এই ব্যবস্থা তুলে দেয়া হয়েছে এবং এরপর প্রয়োজনে ‘আরো পদক্ষেপ’ নেয়া হবে।

রাশিয়ার উপ পররাষ্ট্রমন্ত্রী সের্গেই ভার্শিনিন দেশটির বার্তা সংস্থা স্পুৎনিককে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে এ সতর্কবাণী উচ্চারণ করেছেন। তিনি বলেছেন, সিরিয়াকে এস-৩০০ দেয়ার পর প্রয়োজনে ‘অতিরিক্ত ব্যবস্থা’ নেয়া হবে। তবে ঠিক কি ব্যবস্থা নেয়া হতে পারে সে সম্পর্কে তিনি কোনো ইঙ্গিত করেননি।

সিরিয়ায় এস-৩০০ মোতায়েন করা সত্ত্বেও দেশটিতে বিমান হামলা অব্যাহত থাকবে বলে তেল আবিব হুঁশিয়ারি দেয়ার পর রাশিয়ার পক্ষ থেকে এ বক্তব্য এলো।

রাশিয়ার উপ পররাষ্ট্রমন্ত্রী সের্গেই ভার্শিনিন

গত মঙ্গলবার রাশিয়ার সেনাবাহিনী একটি ভিডিও প্রকাশ করে সিরিয়ার কাছে এস-৩০০ হস্তান্তর সম্পন্ন করার খবর জানায়। এর আগের দিন রাশিয়ার প্রতিরক্ষামন্ত্রী সের্গেই শোইগু বলেন, তার দেশ সিরিয়াকে অত্যাধুনিক আকাশ প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা এস-৩০০ সরবরাহ করার কাজ শেষ করেছে।

গতমাসে ইহুদিবাদী ইসরাইলি জঙ্গিবিমানের উসকানিতে সিরিয়ার আকাশে রাশিয়ার একটি সামরিক বিমান বিধ্বস্ত হওয়ার পর মস্কো দামেস্ককে এই ব্যবস্থা সরবরাহের সিদ্ধান্ত নেয়। সিরিয়ার লাতাকিয়া প্রদেশের আকাশে ওই বিমান বিধ্বস্তের ঘটনায় রাশিয়ার ১৫ সেনা সদস্য নিহত হন।

গত ১৭ সেপ্টেম্বর ইহুদিবাদী ইসরাইলের চারটি এফ-১৬ জঙ্গিবিমান লাতাকিয়ার আকাশসীমায় অনুপ্রবেশ করে বোমা হামলা চালায়। এ সময় সিরিয়ার বিমান প্রতিরক্ষা ইউনিট থেকে নিক্ষিপ্ত গোলার আঘাতে রাশিয়ার সামরিক বিমান আইএল-২০ বিধ্বস্ত হয়ে এর সব আরোহী নিহত হন।

সূত্র: পার্স টুডে



পাঠকের মন্তব্য

(মতামতের জন্যে সম্পাদক দায়ী নয়।)